সৌদি আরবের কাছে অস্ত্রবিক্রিতে নিষেধাজ্ঞার মেয়াদ বাড়ালো জার্মানি

0


সৌদি আরবের অস্ত্রবিক্রির ওপর আরোপিত সাময়িক নিষেধাজ্ঞার মেয়াদ বাড়িয়েছে জার্মানি। সাংবাদিক জামাল খাশোগি হত্যায় সৌদি আরবের ভূমিকায় উদ্বিগ্ন হয়ে এই নিষেধাজ্ঞা জারি করা হয়েছিল। ৯ মার্চ নিষেধাজ্ঞার মেয়াদ শেষ হওয়ার কথা থাকলেও তা পুরো মার্চ মাস বহাল রাখা হয়েছে। কাতারভিত্তিক সংবাদমাধ্যম আল জাজিরা এখবর জানিয়েছে।

২০১৮ সালের নভেম্বরে সৌদি আরবের কাছে ২০১৯ সালের ৯ মার্চ পর্যন্ত অস্ত্র বিক্রি বন্ধের সিদ্ধান্ত ঘোষণা করে। সাংবাদিক জামাল খাশোগি হত্যার পর বার্লিন এ সিদ্ধান্ত নেয়। জার্মানির সিদ্ধান্তের সমালোচনা করে আসছে ফ্রান্স ও ব্রিটেন।

বুধবার জার্মানির পররাষ্ট্রমন্ত্রী জানান, নিষেধাজ্ঞার মেয়াদ পুরো মার্চ মাস পর্যন্ত বৃদ্ধি করা হয়েছে। এই সময়ের মধ্যে সরকার ইয়েমেন যুদ্ধে সৌদি আরবের সেনাবাহিনীর ভূমিকা মূল্যায়ন করার সুযোগ পাবে।

জার্মান চ্যান্সেলর অ্যাঙ্গেলা ম্যার্কেলের মন্ত্রিসভার বৈঠক শেষে পররাষ্ট্রমন্ত্রী হেইকো মাস বলেন, ইয়েমেন পরিস্থিতির ওপর নজর রেখেই আমরা এই সিদ্ধান্ত নিয়েছি। শুধু যে এই মাসের শেষ পর্যন্ত অনুমতি দেওয়া হবে তা না, যেসব পণ্যকে ইতোমধ্যে অনুমতি দেওয়া হয়েছে সেগুলোও সরবরাহ করা হবে না।

ইয়েমেন যুদ্ধে হতাহতের কোনও নির্দিষ্ট সংখ্যা নেই। ২০১৭ সালে জাতিসংঘের এক কর্মকর্তা জানিয়েছিলেন, তখন পর্যন্ত ১০ হাজার বেসামরিক নাগরিক নিহত হয়েছে। যদিও মানবাধিকার সংগঠনগুলোর দাবি, নিহতের সংখ্যা এরচেয়ে পাঁচগুণ বেশি হতে পারে।

২০১৫ সালের মার্চ মাসে ইয়েমেন যুদ্ধে অভিযান শুরু করে সৌদি আরবের নেতৃত্বাধীন জোট। আন্তর্জাতিকভাবে সমর্থিত নির্বাসিত প্রেসিডেন্ট আব্দ-রাব্বু মনসুর হাদিকে ক্ষমতায় বসানোর জন্য সৌদি আরবের এই অভিযান। ২০১৪ সালে ইরান সমর্থিত হুথি বিদ্রোহী গোষ্ঠী হাদিকে উচ্ছেদ করে নির্বাসনে পাঠায়।



LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here